উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় শামীম ওসমানকেই এমপি দেখতে চায় বাবুল চৌধুরী

ষ্টাফ রিপোর্টার :আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন কে সামনে রেখে সারাদেশের ন্যায় নারায়ণগঞ্জেও বইছে নির্বাচনী হাওয়া।চায়ের ষ্টল থেকে শুরু করে অফিস আদালত সবখানেই নির্বাচন কে সামনে রেখে ভিন্ন আমেজ পরিলক্ষিত হচ্ছে ভোটারদের মাঝে।ভোটাররা এবারের নির্বাচনে ভোট দেওয়ার জন্য মুখিয়ে রয়েছে।যদিও এখনো কোন দলই প্রার্থীতা নিশ্চিত করেনি।তারপরেও চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। নির্বাচন কে সামনে রেখে প্রধান দল আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা সরকারের সাফল্য ঘরে ঘরে প্রচার করে যাচ্ছেন।
তারই ধারাবাহিকতায় ফতুল্লা থানা তাতীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুজিব আদর্শ এর অকুতোভয় সৈনিক মো: বাবুল চৌধুরীও দলের সাফল্যের কথা তুলে ধরছেন নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনের ভোটারদের মাঝে।
নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনে কে হতে পারেন নৌকার মাঝি এমন এক প্রশ্নের জবাবে একান্ত সাক্ষাতকারে এ প্রতিবেদক তিনি বলেন,প্রধান মন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নিকট যেমন বাংলার মানুষ নিরাপদ ঠিক তেমনি ভাবে নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনের মানুষও একেএম শামীম ওসমানের নিকট নিরাপদ।
নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনের মাটি ও মানুষের নেতা জননেতা এ কে এম শামীম ওসমানের বিকল্প কোন নেতা আমরা দেখি না।তার বিকল্প তিনি নিজেই।আমাদের প্রাণপ্রিয় নেতা আলহাজ্ব একে এম শামীম ওসমানই হবেন নৌকার মাঝি। রাজনীতি তে ওসমান পরিবাররে রয়েছে গৌরব উজ্জ্বল ইতিহাস যা অন্য কারো নেই।একেএম শামীম ওসমান সেই ইতিহাসের জীবন্ত কিংবদন্তী। নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনে উন্নয়নের অপর নাম শামীম ওসমান,শামীম ওসমানের অপর নাম উন্নয়ন।উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনে আগামীতেও জননেতা আলহাজ্ব এক এম শামীম ওসমানকেই এমপি হিসেবে দেখতে চাই।১৯৯৬ ও ২০১৮ সালে নারায়ণগঞ্জ ৪ আসন এলাকার
জন্য যে উন্নয়ন তিনি করেছেন তা বাংলাদেশের কোন এমপি করতে পারেন নি।আমাদের প্রয়োজনেই তাকে পুনরায় এমপি হিসেবে নির্বাচিত করে সফল প্রধান মন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে আমাদের একতাবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে।
রাষ্ট্র পরিচালনায় এ সরকারের সাফল্য
বা ব্যর্থতা কতটুকু তা জানতে চাইলে তিনি বলেন,জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার এদেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নের পাশাপাশি দেশকে এনালগ থেকে ডিজিটালে উন্নীত করেছেন।নিন্ম আয়ের দেশ হতে সল্পোন্নত দেশে পরিনত করেছেন।একজন নাগরিকের পরিচয় পত্র স্মার্ট কাড বিতরন করে বাংলার মানুষকে স্মার্ট জাতিতে সম্মানিত করেছেন।যা এ সরকারের যুগান্তকারী পদক্ষেপ। সবক্ষেত্রেই সরকারের সাফল্য অর্জিত হয়েছে,কোথাও ব্যর্থতা নেই। জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার কথায় নয়, কাজে বিশাসী।এটা বাংলার মানুষ জানে।তাই এদেশের শান্তিকামী মানুষ আবারো শেখ হাসিনার সরকাররকেই আগামীতেও ক্ষমতায় আনবে ইনশাল্লাহ। পাশাপাশি নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনে জননেতা আলহাজ্ব একেএম শামীম ওসমানকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করে আমরাও দেখিয়ে দেবো তার কোন বিকল্প নেই।জয় বাংলা, জয় বংগবন্ধু।