প্রবাসীর স্ত্রীর ফ্ল্যাটে মদ্যপ ছাত্রলীগ নেতাসহ আটক ২ 

ফতুল্লা(আজকের নারায়নগঞ্জ): ফতুল্লায় আমেরিকা প্রবাসীর স্ত্রীর ফ্ল্যাটে বসে এক বন্ধুকে নিয়ে  মদ পান করার সময় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা পুলিশের হাতে আটক হয়েছে। এসময় পুলিশ ওই বাসা থেকে ১৫টি বিদেশী মদের খালি বোতল ও একটি প্রিমিও প্রাইভেটকার ( ঢাকা মেট্রো-গ ৩৪-১৪৫৪)জব্দ করেন।

১২ অক্টোবর শুক্রবার ভোরে ফতুল্লার আবাসিক এলাকা আফাজনগরের কুদ্দুস মিয়ার ভবনের পঞ্চম তলার ফ্ল্যাট থেকে তাদের আটক করেন। এসময় পুলিশ প্রবাসীর স্ত্রীকে সকালে থানায় হাজির হওয়ার শর্তে বাসায় রেখে আসেন।

আটককৃতরা হলেন শহরের দেওভোগ এলাকার জহিরুল হক সেলিম রেজার ছেলে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ফাহিম(৩৫) ও তার বন্ধু রনি।

ঘটনাস্থলে যাওয়া ফতুল্লা মডেল থানার পরিদর্শক (আইসিপি) গোলাম মোস্তফা জানান, মধ্য রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে আফাজ নগর আবাসিক এলাকায় কুদ্দুস মিয়ার ৫ম তলার ফ্ল্যাটে অভিযান চালানো হয়। এ সময় সময় দুইজনকে মদ পানরত অবস্থায় আটক করা হয়েছে। অভিযানের সময় একটি বিদেশী মদের বোতল তাদের সামনে থেকে পাওয়া গেছে। অভিযানের কিছুক্ষন পূর্বে ওই বোতলের মদ পান শেষ করেছেন। এছাড়া বিথির ফ্ল্যাট থেকে আরো ১৪টি বিদেশী মদের বোতল খালি অবস্থায় পাওয়া যায়।

তিনি আরো জানান,  ওই ফ্ল্যাটে বিথি নামে একজন নারী বসবাস করেন। তার দুইটি কন্যা সন্তান আছে স্বামী জিয়াউল হাবিব আমেরিকায় বসবাস করেন।

ঘটনাস্থলে যাওয়া ফতুল্লা মডেল থানার আরেক পরিদর্শক (অপারেশন) মজিবুর রহমান জানান, স্থানীয়রা পুলিশকে জানিয়েছে বিথির ফ্ল্যাটে প্রতিদিন প্রাইভেটকারে একাধীক ব্যবসায়ীরা এসে সকাল থেকে ভোর রাত পর্যন্ত মদের আড্ডা করতো। একই সঙ্গে অসামাজিক কার্যকলাপও চালাতো। এতে মাতাল হয়ে অনেকেই ফ্ল্যাটের বাহিরে বের হয়ে মাতলামী করতো।
তিনি আরো জানান, ওই ফ্ল্যাটে দুই ব্যক্তিকে মদ পানের সময় আটক করা হয়েছে। তাদের মধ্যে ফাহিম নামে একজন নিজেকে ছাত্রলীগ নেতা পরিচয় দিয়েছেন। সে ওই ফ্ল্যাটে একটি প্রিমিও প্রাইভেটকার নিয়ে এসেছেন। উদ্ধার করা মদের খালি বোতলের সঙ্গে সেই প্রাইভেটকারও জব্দ করা হয়েছে। এবিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।