পাটমন্ত্রীর প্রচেষ্টায় পাল্টে যাচ্ছে মান্দা উপজেলার চিত্র !

মাহবুবুজ্জামান সেতু, নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁ জেলা হতে প্রায় ৩০ কিঃমিঃ দূরত্বে অবস্থিত মান্দা উপজেলাটিকে একসময় অবহেলিত ও উন্নয়ন বঞ্চিত হিসাবে দেখা হতো৷ কিন্তু এখন এই উপজেলাটি গত ৯ বছরে সরকারের ও বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী মুহাঃ ইমাজ উদ্দিন প্রামানিক এর প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে একান্ত প্রচেষ্টায় অগ্রণী ভূমিকায় তাঁর হাতের ছৌঁয়ায় অব্যাহত উন্নয়নের ধারায় পাল্টে যাচ্ছে এই উপজেলার চিত্র।
স্বাধীনতার পরবর্তিতে এই উপজেলার মানুষের দীর্ঘদিনের চাওয়া পাওয়ার মৌলিক চাহিদাগুলি এখন মানুষের সেবার দাঁড়গোড়ায় পৌঁছে গেছে৷ এর সুফল উপজেলাবাসী ভোগ করছে৷ ইতোপূর্বে ও বর্তমান চলমান সময়ে নির্মিত উলেøখযোগ্য স্থাপনার চিত্র দেখলেই বুঝা যায় এই উপজেলায় উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে।
স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের তথ্য অনুসন্ধানে জানা গেছে, এ উপজেলায় ২০০৯ সাল থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত মান্দা উপজেলায় ৪৩ কিলোমিটার রাস্তা পাকাকরণ, ১৬৭ কিলোমিটার গ্রামীণ সড়ক উন্নয়ন, ১১২ কিলোমিটার গ্রামীণ সড়ক রক্ষনাবেক্ষন, ১২৯২ টি কালভার্ট, ১৪ টি ইউনিয়ন পরিষদ কমপ্লেক্স ভবন, ৬ টি গ্রোথ-সেন্টার, ১৬৭ টি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ২০ টি ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ ব্যবস্থাপনা, ১ টি মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স, ৫টি অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধা নিবাস, ১ টি শহীদ কামরুজ্জামান টেক্সট্রাইল ইন্সটিটিউট, ৫০ শয্যা বিশিষ্ট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, ১টি ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন নির্মাণসহ বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি টাকা দিয়ে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ হয়েছে।

মান্দার নুরুল্যাবাদ ইউপি আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ও অব. ব্যাংক কর্মকর্তা মুনছুর রহমান মৃধা বলেন, আগের তুলনায় বর্তমান সরকারের আমলে রাস্তাঘাট, শিক্ষা ব্যবস্থা, বিদুৎ এর ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হয়েছে।
মান্দা উপজেলার তৃণমূল পর্যায়ের লোকজন বাদল, শাহাদত এবং দুলাল বর্তমান দেশনেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী মুহাঃ ইমাজ উদ্দিন প্রামানিক (এমপি.) যে উন্নয়ন করেছেন সেজন্য এলাকাবাসী তাকে ধন্যবাদ জানিয়ে আবারো নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।
এ বিষয়ে মান্দা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুশফিকুর রহমান জানান, আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়নের অব্যাহত ধারা অনুযায়ী অত্র উপজেলার উন্নয়নের কাজ এগিয়ে যাচ্ছে।