হে নাথ

– আবু নাসের

গোলাপকে যেমন কন্টক ঘিরে রাখে
মধুকে যেমন মধুমক্ষিকা ঘিরে রাখে
হীরককে যেমন অংগার ঘিরে রাখে
স্বর্নরে যেমন খাদ ঘিরে রাখে
মুক্তারে যেমন সুক্তি ঘিরে রাখে
শশধরকে যেমনি জলধর ঘিরে রাখে
মাধুর্য্যকে যেমন লজ্জ্যা ঢেকে রাখে
সৌন্দর্যকে যেমনি আব্রু ঘিরে রাখে
সুমিস্ট বচনকে যেমন অধর ঘির্য়া রাখে
সুখস্বপ্নগুলোকে যেমন আঁখি পল্লব ঘিরে রাখে
তেমনি করে প্রেমভাণ্ডকে তিঁনি ঘিরে রেখেছেন
যাতে সহসা তাঁর প্রেমাঘারে কেউ হানা দিতে না পারে !

কাঁটার আঘাতে জর্জরিত রক্তাক্ত হয়েই
তাঁর প্রেমের পথের ভিখারী হয়ে পথ চলতে হয় ।
এ পথ যে বেশ পিচ্ছিল, স্বাপদশংকুল !

হে নাথ ! আমি কি চিনতাম তোমায়, যদি না চেনাতে “

নাও না বুকে আমায় !
আর কতকাল দহন জ্বালায় জ্বালাবে আমায় !