না ফেরার দেশে চলে গেলেন সংশপ্তকের ‘বড় মালু’

আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্কঃ

না ফেরার দেশে চলে গেলেন বিনোদন জগতের আরেক তারকা বীর মুক্তিযোদ্ধা ও খ্যাতিমান অভিনেতা মুজিবুর রহমান দিলু ।

আজ মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) সকাল ৬টা ৩৫ মিনিটে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বিটিভিতে প্রচারিত হুমায়ূন আহমেদের ‘সংশপ্তক’ নাটকে ‘বড় মালু’ চরিত্রে অভিনয় করে আলোচিত হয়েছিলেন মুজিবুর রহমান দিলু। অনেকে তাকে ‘বড় মালু’ নামেই চেনেন।

তথ্যটি গনমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের মহাসচিব কামাল বায়েজিদ।

তার মৃত্যু সংবাদটি নাট্যসারথি আতাউর রহমানও তার ফেসবুক আইডিতে জানিয়ে এক পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘আমার ছোট ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা, কীর্তিমান মঞ্চ ও টেলিভিশন অভিনেতা মুজিবুর রহমান দিলু নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে আজ সকাল ৬টা ৩৫ মিনিটে এই পৃথিবীর মায়া ছেড়ে অসীমের যাত্রী হয়েছেন।’

১৯৭১ সালে কিশোর বয়সেই মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিলেন তিনি। প্রশিক্ষণ নিয়েছিলেন ভারতের বিহার রাজ্যের চাকুলিয়ায়। গর্ব করে বলতেন, ‘আমার কমান্ডার নাসির উদ্দিন ইউসুফ।’

তার উল্লেখযোগ্য নাটকগুলো হলো: ‘তথাপি’, ‘সময় অসময়’, ‘সংশপ্তক’ ইত্যাদি।

দিলুর অভিনয় শুরু মঞ্চ দিয়ে। ১৯৭২ সালে বিটিভির তালিকাভুক্ত শিল্পী হন তিনি। ১৯৭৬ থেকে তাকে নিয়মিত অভিনয়ে পাওয়াে গেছে।

তার মঞ্চ নাটকগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো: ‘আমি গাধা বলছি’, ‘নানা রঙের দিনগুলি’ ও ‘জনতার রঙ্গশালা’।

জানা যায়, শেষবিদায় ও শ্রদ্ধা জানাতে বিকালে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে মরদেহ নেওয়া হবে।

প্রযোজক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব খ ম হারুন জানান, মুজিবুর রহমান দিলুর জানাজা হবে আজ বাদ জোহর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় মসজিদে। এরপর বেলা ৩টা থেকে-৪টা পর্যন্ত শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের জন্য তাকে রাখা হবে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে। বিকাল ৫টায় রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় শ্রদ্ধা ও দাফন করা হবে বনানী কবরস্থানে।

দিলু ২০০৫ সালে গুলেন বারি সিনড্রোমে আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন কোমায় ছিলেন। এরপর তিনি সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবন যাপন শুরু করেন। তিনি শান্ত মরিয়াম বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্বাহী পরিচালক পদে কর্মরত ছিলেন।