আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্কঃ

বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ ১৯৭২ এর ১১ নভেম্বর প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। কিন্তু এর প্রতিষ্ঠা হওয়ার পিছনের কারণ হিসেবে যদি দেখতে চাই তাহলে বাংলাদেশের ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে স্বাধীনতা যুদ্ধের দিকে তাকাতে হয়। এই যুব সমাজের কথা উপলব্ধি কর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্দেশে শেখ ফজলুল হক মনি ভাইয়ের নেতৃত্বে এই যুবলীগের সৃষ্টি হয়।যুবলীগের রাজনীতি পরিচ্ছন্ন রাজনীতি। আজকে এই সংগঠন দেশের দুর্বিপাকে দেশের আপামর জনতার জন্যে কাজ করে গেছে।

বুধবার(১১ নভেম্বর) বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে মহানগর যুবলীগের উদ্যোগে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে মহানগর যুবলীগ সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সাজনু একথা বলেন।

তিনি বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার যে কাজগুলো অসম্পূর্ণ রয়ে গেছে তা সম্পূর্ণ করার লক্ষ্যে তার নির্দেশনায় এবং কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। তার পাশাপাশি জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে দলকে সুসংগঠিত করার জন্যে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। আজকের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আমাদের শপথ হোক, জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করে দেশের উন্নয়নকে ধরে রাখার জন্য আমরা কাজ করে যাবো।

বক্তব্য শেষে বিশেষ দোয়া করা হয় এবং কেক কাটা হয়।

এর আগে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে চাষাড়া শহীদ মিনার থেকে একটি র‍্যালী বের করা হয়। র‍্যালীটি নগরীর প্রধান প্রধান সড়কগুলো প্রদক্ষিণ করে ২নং রেলগেইট জেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে এসে শেষ হয়।

র‍্যালী শেষে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানান নেতৃবৃন্দরা।

এসময় মহানগর যুবলীগের সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সাজনু’র সভাপতিত্বে আরো উপস্থিত ছিলেন, সহসভাপতি এড. ফজলুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আমজাদ হোসেন জুয়েল, প্রচার সম্পাদক আব্দুল কাদির, ১১নং ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি চঞ্চল মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ মেম্বার, ১২নং ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি সেলিম খান, ১৩নং ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন,১৬নং ওয়ার্ড যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক কাইয়ুম পারভেজ, ১৭ নং ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি আসাদুল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক মামুন ভূইয়া, ১৮ নং ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি আব্দুল খালেক, সাধারণ সম্পাদক মজিবুর রহমান প্রমুখ।