ক্রীড়া ডেস্ক(আজকের নারায়নগঞ্জ): বাংলাদেশের বিপক্ষে দুটি প্রীতি ম্যাচ খেলতে ঢাকায় পৌঁছেছে নেপাল জাতীয় ফুটবল দল।

চার্টার্ড বিমানে করে বৃহস্পতিবার(৫ নভেম্বর) বেলা দেড়টায় ঢাকায় পা রাখে নেপাল। আগামী ১৩ ও ১৭ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বাংলাদেশের বিপক্ষে দুটি প্রীতি ম্যাচ খেলবে তারা।

আজই করোনাভাইরাস পরীক্ষা করানোর পর সফরকারীদের আগামী শনিবার পর্যন্ত কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে বলে গনমাধ্যমকে জানিয়েছেন বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ।

২৫ জন খেলোয়াড় ও সাত জন কোচ-কর্মকর্তাসহ ৩২ জনের বহর নিয়ে এসেছে দলটি।

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে গত মার্চ থেকে বন্ধ রয়েছে দেশের ফুটবল। বাতিল হয়েছে ঘরোয়া ফুটবলের ২০১৯-২০ মৌসুম। ২০২২ বিশ্বকাপের এশিয়া অঞ্চলের বাছাইও পিছিয়ে যাওয়ায় এ বছর আন্তর্জাতিক কোনো ম্যাচ ছিল না দলের। নেপাল আসায় তাদের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে মাঠে ফিরছে দেশের ফুটবল।

বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচের জন্য শুরু হওয়া নেপাল দলের ক্যাম্পের চার ফুটবলারের করোনাভাইরাসের আক্রান্ত হওয়ার খবর দিয়েছিল দেশটির ফুটবল ফেডারেশন (আনফা)। নাম না জানালেও দেশটির গণমাধ্যম বুধবার আরও দুজনের আক্রান্ত হওয়ার খবর দেয়।

ম্যাচের ৭২ ঘণ্টা আগে দুই দলের খেলোয়াড়দের আবারও করোনাভাইরাসের পরীক্ষা করানো হবে বলে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন জানিয়েছিল আগেই।

প্রধান কোচ জোহান কালিনের অনুপস্থিতিতে নেপালের ডাগআউটে দেখা যাবে বালগোপাল মহারাজন। গত বৃহস্পতিবার তার কোচিংয়েই কাঠমান্ডুর দশরথ স্টেডিয়ামে অনুশীলন শুরু করে নেপাল দল।