ঢাকার সাজেনের লাশ ফতুল্লায় উদ্ধার

ফতুল্লা(আজকের নারায়নগঞ্জ): বন্ধুদের সাথে দেখা করতে এসে লাশ হয়ে ফিরলো ঢাকার রাজারবাগ এলাকার বাসীন্দা সাজেন (২১)। নিহত সাজেন ঢাকার সবুজবাগ থানার ৩৯ নং রাজারবাগের জাহাঙ্গীর হোসেনের পুত্র।

মঙ্গলবার (১৩অক্টোবর) রাত সাড়ে বারোটায় ঢাকা- নারায়নগঞ্জ লিং রোডের ফতুল্লা থানার ভুইঘর এসবি গার্মেন্টসের সামনের সড়কের পাশ থেকে নিহত সাজেনের মৃত দেহ উদ্ধার করা হয়।

ময়নাতদন্তের জন্য নিহতের মৃত দেহ নারায়নগঞ্জ ভিক্টোরিয়া জেনারেল হাসপাতালে রয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

ফতুল্লা থানার এস,আই আরিফ তালুকদার জানায়,নিহত সাজেন ঢাকার মোতালেব প্লাজায় তার ভাইয়ের সাথে মোবাইলের দোকানে সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার হিসেবে কাজ শেখার পাশাপাশি দোকানে বসতো।এক সময় তারা স্ব-পরিবারের ফতুল্লা থানাধীন ইসদাইর বুড়ির দোকান এলাকায় বসবাস করতো। বর্তমানে তারা ঢাকায় বসবাস করে।নিহত সাজেন প্রায় সময় ইসদাইর বুড়ির দোকানস্থ তার ছেলে বেলার বন্ধুদের সাথে করতে আসতো। গতকাল নিহত সাজেনের মৃত দেহ ঢাকা- নারায়নগঞ্জ লিং রোডের ভুইঘর এস,বি গার্মেন্টসের সামনের রাস্তায় পরে থাকতে দেখে দুইজন পথচারী তাকে উদ্বার করে নারায়নগঞ্জ ভিক্টোরিয়া জেনারেল হাসোতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষনা করে।

তিনি আরো বলেন নিহতের মাথায় আঘাতের চিন্থ রয়েছে এবং গাড়ের একাংশ ভেঙ্গে গেছে।প্রাথমিক ধারনায় কর্তব্যরত চিকিৎসকরা সড়ক দূর্ঘনা বলে সন্দেহ করলে ও ময়নাতদন্তের রিপোর্টের পর মৃত্যুর কারন নিশ্চিত হওয়া যাবে।

এ বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানার ইনচার্জ আসলাম হোসেন জানান,প্রাথমিক ধারনায় সড়ক দুর্ঘটনা মনে হলেও ময়নাতদন্ত ছাড়া নিশ্চিত করে কোন কিছু বলা যাবেনা।