ফতুল্লায় চোর ধরতে গিয়ে পুলিশ অবরুদ্ধ, আটক ২

ফতুল্লা(আজকের নারায়নগঞ্জ):   ফতুল্লায় ডাকাতের ভাইকে চুরির অভিযোগে আটক করায় পুলিশকে অবরুদ্ধ করে রাখার অভিযোগ উঠেছে। পরে স্থানীয়দের সহযোগীতায় দুইজনকে আটক করে দ্রুত ওই স্থান ত্যাগ করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে ফতুল্লা রেলষ্টেশন এলাকায় এঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ফতুল্লার চিহ্নিত ও পুলিশের তালিকাভুক্ত ডাকাত লিপুর বড় ভাই দিসান মিয়া ফতুল্লা রেলস্টেশনে ভাঙ্গারীর দোকান দিয়ে প্রায় অর্ধশতাধিক চোর রেখেছে। তারা পুরানো আসবাবপত্র ও ভাঙচোরা হাড়ি পাতিল কেনার নামে বাসা বাড়ির তালা ভেঙ্গে চুরি করে। আর সেই চোরাই মালামাল দিসান মিয়ার দোকানে বিক্রি করে।

এর মধ্যে এক চোর কোন এক ব্যক্তির ব্যাটারী চালিত অটো রিকশা চুরি করে তা ভেঙ্গে দিসান মিয়ার কাছে বিক্রি করে। পরে চোরদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে ফতুল্লা মডেল থানার এসআই আসাদ অভিযান চালিয়ে দিসান মিয়াকে চোরাই রিকশাসহ তার দোকান থেকে আটক করে। এসময় দিসানের লোকজন পুলিশকে চার দিক ঘিরে অবরুদ্ধ করে রাখে।

এক পর্যায়ে দিসানকে ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টাও চালায় তারা। তখন পুলিশ স্থানীয়দের সহযোগীতায় দিসান ও তার সহযোগী সাইফুলকে আটক করে দ্রুত ওই স্থান ত্যাগ করেন।

এসআই আসাদ বলেন, দিসান চোরদের সর্দার হিসেবে এলাকায় চিহ্নিত। তার রয়েছে চোরদের বিশাল বাহিনী। ভাঙ্গারী ব্যবসার আড়ালে দিসান চোরাই মাল বেচাকেনা করেন। তার দোকানেও চোরাই মাল পাওয়াগেছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।