সিরিজ নির্ধারনী ম্যাচে ভোরে ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি বাংলাদেশ

ক্রীড়া ডেস্ক(আজকের নারায়নগঞ্জ):   ওয়ানডে সিরিজের পর টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয়ের হাতছানি বাংলাদেশের সামনে। প্রথম ম্যাচটি অগোছালো পারফরম্যান্সের মাশুল হিসেবে হেরেছিল টাইগাররা। পরের ম্যাচটিতে অবশ্য ঘুরে দাঁড়িয়েছে তারা। তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানের দায়িত্বশীল ব্যাটিং ও বোলারদের সমীহ জাগানিয়া বোলিং বাংলাদেশকে ১২ রানের জয় এনে দিয়েছে। তাতে সিরিজে ফিরেছে সমতা। তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে এখন ১-১ এ সমতা বিরাজ করছে।

এই সমতা ভাঙতে আগামীকাল সোমবার বাংলাদেশ সময় সকাল ৬টায় আবার মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করবে গাজী টিভি, চ্যানেল নাইন ও সনি ইএসপিএন। এই ম্যাচটি যে জিতবে তারাই সিরিজ জয় করবে। ফলে ম্যাচটি অঘোষিত ফাইনালে রূপ নিয়েছে।

ফ্লোরিডায় এসেই জয় পাওয়ায় বাংলাদেশ ফুরফুরে মেজাজে রয়েছে। এই ছন্দ নিয়েই তারা সকালে মাঠে নামবে। মানসিকভাবে কিছুটা হলেও এগিয়ে থাকবে টাইগাররা। তার উপর ফ্লোরিডার কন্ডিশন অনেকটা বাংলাদেশের মতোই। তাই ২০১২ সালের পর বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশের সামনে সুযোগ রয়েছে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জেতার।

বাংলাদেশ সোমবার অপরিবর্তিত একাদশ নিয়েই মাঠে নামবে। অন্যদিকে শেষ ম্যাচটি জিতে সিরিজ জয় করতে চাইবে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তাদের একাদশে পরিবর্তন আসতে পারে।

টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য কোনো সাফল্য নেই। এ পর্যন্ত বাংলাদেশ একের অধিক ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলেছে ১১টি। এগারোটির ৭টি বিদেশের মাটিতে ও ৪টি দেশের মাটিতে। তবে কখনো ঘরের মাঠে সিরিজ জিততে পারেনি টাইগাররা। তবে দেশের বাইরে খেলা ৭টির একটিতে সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশ। তাও ৬ বছর আগে। ২০১২ সালে আয়ারল্যান্ডকে তাদের মাটিতে হোয়াইটওয়াশ করেছিল বাংলাদেশ।

বাকি ছয়টি সিরিজের তিনটিতে হেরেছে এবং তিনটিতে ড্র করেছে টাইগাররা। এবার ৬ বছর পর বিদেশের মাটিতে দ্বিতীয় কোনো টি-টোয়েন্টি সিরিজ জেতার হাতছানি সাকিব-তামিমদের সামনে।