চিরনিদ্রায় গেলেন ঋষি কাপুর

বিনোদন ডেস্ক(আজকের নারায়নগঞ্জ): ফের এক মহাতারকাকে হারাল ভারতীয় চলচ্চিত্র জগৎ। বুধবার ইরফান খানের পর বৃহস্পতিবারই চিরনিদ্রায় গেলেন প্রবীণ অভিনেতা ঋষি কাপুর। অত্যন্ত সংকটজনক অবস্থায় বুধবারই হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন তিনি। মুম্বইয়ের এইচএন রিলায়েন্স হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল তাঁকে। আইসিইউতেই রাখা হয়েছিল প্রবীণ বলিউড অভিনেতাকে।

৬৭ বছরের ঋষি ক্যানসারে ভুগছিলেন। বলিউডের আরেক বরেণ্য অভিনেতা অমিতাভ বচ্চন টুইটে ঋষি কাপুরের প্রয়াণের খবর নিশ্চিত করেন।

ভাই ঋষির অসুস্থতার খবর গতকালই নিশ্চিত করেছিলেন দাদা রণধীর কাপুর।

এদিন প্রবীণ বলিউড অভিনেতার জনসংযোগকারী টিমের তরফে দেওয়া বিবৃতিতে জানা গিয়েছে, বুধবার ঋষি কাপুরের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে তাঁকে। স্ত্রী নীতু কাপুর ওঁর সঙ্গেই রয়েছেন হাসপাতালে। ছেলে রণবীর কাপুরও রয়েছেন। চিকিত্‍‌সকের পরামর্শেই বুধবার ঋষি কাপুরকে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। কিন্তু লড়াই থামল প্রবীণ অভিনেতার। মারা গেলেন কাপুর পরিবারের অন্যতম উজ্জ্বল নক্ষত্র।

উল্লেখ্য, চলতি বছরেরই ফেব্রুয়ারি মাসে দিল্লির দূষণে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন ঋষি কাপুর। সেসময়ও হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়েছিল তাঁকে। যার জন্যে একমাত্র ভাগনে আরমান জৈনের বিয়েতে যেতে পারেননি ঋষি, নীতু ও রণবীরের কেউই। তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমেছে চলচ্চিত্র জগতে।