টানবাজার থেকে কোটি টাকা মূল্যের ১০ টন বন্ডেড সুতা জব্দ

আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্ক: নারায়নগঞ্জের টানবাজারের একটি সূতার গুদামে খোলাবাজারে অবৈধভাবে বিক্রির অভিযোগে প্রায় এক কোটি টাকা মূল্যের ১০ টন বন্ডেড সূতা জব্দ করেছে শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগের কাস্টমস বন্ড কমিশন।

রোববার(৮ ডিসেম্বর) দুপুরে শহরের বানিজ্যিক এলাকা টানবাজারে হাজী বিল্লাল হোসেনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বিসমি ইয়ার্ন ট্রেডিংয়ের গুদামে এ অভিযান চালান সংস্থাটির ঢাকা কার্যালয়ের কর্মকর্তারা। ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জের সিআইডি পুলিশ এ অভিযানে সহায়তা করে।

কাস্টম বন্ড কমিশনের ঢাকা কার্যালয়ের উপ-কমিশনার রেজভি আহমেদ জানান, গাজীপুরের জেলার টঙ্গী উপজেলার ভাদাম এলাকায় অবস্থিত সুপ্রভো কম্পোজিট নীট কারখানায় সূতা বা কাপড় তৈরির জন্য শুল্কমুক্ত সুবিধায় এসব বন্ডেড সুতা আমদানি করা হয়েছে।

এসব সুতা দিয়ে কাপড় তৈরি করে বিদেশে রপ্তানি করার কথা থাকলেও ওই কারখানা কর্তৃপক্ষ বন্ড চুক্তি ভঙ্গ করে অবৈধভাবে নারায়ণগঞ্জের বিসমি ইয়ার্ণ ট্রেডিংয়ের কাছে খোলা বাজারে সেগুলো বিক্রি করে দেয়। যা বন্ডের আইন অনুযায়ী সম্পূর্ণভাবে অবৈধ ও চোরা কারাবারের সামিল।

কাস্টমস বন্ডের এই কর্মকর্তা জানান, কিছু অসাধু ব্যবসায়ী শুল্কমুক্ত সুবিধায় কাচাঁমাল হিসেবে সূতা আমদানি করে তা খোলা বাজারে সুলভ মূল্যে বিক্রি করে দেশীয় পোশাক ও বস্ত্রশিল্প খাতকে ক্ষতিগ্রস্থ করে আসছিলো। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে কাস্টমস ও বন্ড কমিশনের ঢাকা কার্য়্যালয়ের গোয়েন্দ তথ্যের ভিত্তিতে বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে নারায়ণগঞ্জের এই গুদামে অভিযান চালানো হয়। অভিযান শেষে বিকেলে জব্দকৃত বিপুল পরিমান এই অবৈধ সুতা ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হয়।

এ ব্যাপারে পরবর্তীতে তদন্ত করে আরো কি পরিমান সূতা খোলাবাজারে বিক্রি করা হয়েছে তা যাচাই বাছাই করে উভয় প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ফৌজদারি আইনে মামলা দায়ের করা হবে বলেও জানান কাস্টম বন্ড কমিশনের ঢাকা কার্যালয়ের উপ-কমিশনার রেজভি আহমেদ।

উপ-পরিচালক রেজভি আহমেদ ছাড়াও অভিযানে আরো অংশ নেন সংস্থাটির সহকারি কমিশনার আল আমিন, শরীফ মোহাম্মদ ফয়সাল, আক্তার হোসেনসহ ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জের সিআইডি পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তারা।