গোলাম কবিরের কবিতা

স্ত্রী মানে
– গোলাম কবীর

স্ত্রী মানে চাষাবাদের নিজ উর্বর জমি,
স্ত্রী মানে এলোমেলো জীবনে শৃঙ্খলা।
স্ত্রী মানে ক্লান্ত হাটুরের নিশ্চিন্ত ঘরে ফেরা,
স্ত্রী মানে সন্তানের পরম আশ্রয়।
স্ত্রী মানে নিজে কতটা অকর্মা তা
বারবার শোনা,
স্ত্রী মানে তুমুল ঝগড়াবৃষ্টি শেষে
ফকফকা রোদ।
স্ত্রী মানে কারফিউ রাতে চুপচাপ
বসে থাকা,
স্ত্রী মানে জীবন তরকারির লবন।
স্ত্রী মানে নিজের আয়না,
স্ত্রী মানে খেলতে নেমেই
প্রথম উইকেট পড়ে যাওয়া।
স্ত্রী মানে জীবন নৌকার হাল
ঠিকমত ধরে থাকা,
স্ত্রী মানে বৃদ্ধবয়সে দুজন দুজনার
অথবা তার স্মৃতির কৌটা খুলে
নিভৃতে অশ্রু ফেলা।
স্ত্রী মানে সকাল বেলায় এককাপ
গরম চা,
স্ত্রী মানে আমার প্রতি তোমার উদাসীনতা।
স্ত্রী মানে অনর্থক অভিমান শেষে
এক প্লেটে এক হাতে ভাত খাওয়া।
স্ত্রী মানে সারাদিন ঘ্যান ঘ্যান,
তবু ভাল লাগে ক্যান?