পুলিশের ছুটি বাতিল ও ‘হোন্ডা মোবাইল’ সেবা চালু করলেন এসপি হারুন

আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্ক:রমজান মাসে নগরবাসীকে নিরাপদে ও স্বস্তিতে রোজা ও ঈদ পালনে পুলিশের ছুটি বাতিল করা হয়েছে এবং শহরে নাগরিক ভোগান্তি কিংবা যেকোন অপরাধ সংঘটিত হলে তাৎক্ষনিক ব্যবস্থা নিতে পুলিশের ১৬টি হোন্ডা মোবাইল সার্ভিস চালু করা হয়েছে।

মানুষকে পুলিশের সেবা তাৎক্ষণিকসেবা পৌঁছে দিতে ‘হোন্ডা মোবাইল’ নামে এক বিশেষ সেবার উদ্বোধন করে নারায়নগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ বলেছেন, নগরীর প্রতিটি এলাকাসহ ফতুল্লা, সিদ্ধিরগঞ্জ, সদর, সাইনবোর্ডসহ সব জায়গাতেই হোন্ডা মোবাইল যাবে। যেখানেই সমস্যা হবে ওরা সেখানেই মুভ করবে। যেখানেই যানজট হবে ওরা সেখানেই দ্রুত পৌছাবে এবং ব্যবস্থা নেবে। আজ থেকেই তারা কাজ শুরু করবে। সাধারণ মানুষকে স্বস্তি দেয়াটাই আমাদের মূল কাজ।

বৃহস্পতিবার (১৬ মে) চাষাঢ়া কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মাহে রমজান, বৌদ্ধ পূর্ণিমা ও ঈদকে কেন্দ্র করে সার্বিক আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক পরিস্থিতি ও বিশেষ উদ্যোগ নিয়ে ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন। পরে তিনি হোন্ডা মোবাইল সেবার উদ্বোধন করেন।

এসপি হারুন বলেন, কেউ যদি বিপদে পড়ে, যানজটে পড়ে, ছিনতাইকারীর কবলে পড়ে তাহলে তাঁরা ‘হোন্ডা মোবাইল’ কে খবর দিলেই তাঁরা দ্রুত সেখানে গিয়ে পৌছাবে। মানুষের ভালোভাবে যাতায়াতের জন্য যা যা করা দরকার আমরা তাই করবো। কেউ রাস্তা রোধ করে সিএনজি স্ট্যান্ড ও দোকান চালাবে আমরা তা হতে দেইনি। আর হতে দিবোও না।

এসময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোহাম্মদ মনিরুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিবি) মোহাম্মদ নুরে আলম,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিবি) সুবাস চন্দ্র সাহা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক- সার্কেল) মেহেদী ইমরান সিদ্দিকী, নারায়ণগঞ্জ সদর থানা ওসি কামরুল ইসলাম, ফতুল্লা থানা ওসি আসলাম হোসেন ও সিদ্ধিরগঞ্জ থানা ওসি শাহীন পারভেজ ,জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার কর্মকর্তা (ডিআইও-২) সাজ্জাদ রোমনসহ পুলিশ প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা।