সন্ধান মিলেনি সোনা ব্যবসায়ী প্রবীর ঘোষের

আজকের নারায়নগঞ্জঃ    আজও পর্যন্ত সন্ধান মিলেনি কালিবাজারের সোনা ব্যবসায়ী প্রবীর ঘোষের। পুলিশও দিতে পারছে না ভালো কোনো খবর। পাঁচদিন অতিবাহিত হলেও এখনও কোনো সন্ধান না পাওয়ায়  প্রবীর ঘোষের পরিবারে বিরাজ করছে হতাশা।

তাঁর সন্ধানে কাজ করছে পুলিশ এমনটা বললেও প্রবীর ঘোষের পরিবার বলছে, পাঁচ দিনেও পুলিশ কোনো ভালো খবর দিতে পারেনি। জ¦লজ্যান্ত একজন মানুষ হুট করে নাই হয়ে গেলো কোথায় আছে, কীভাবে আছে তার কিছুই জানাতে পারছে না পুলিশ।

এদিকে ১৮ জুন নিখোঁজ হয় কালির বাজার এলাকার সোনা ব্যবসায়ী প্রবীর ঘোষ। তিনি এ এলাকার ভোলানাথা জুয়েলারির মালিক। প্রবীর ঘোষের নিখোঁজের ঘটনায় তাঁর ছোট ভাই বিপ্লব ঘোষ পরদিন ১৯ জুন সদর মডেল থানায় একটি জিডি করেন। এছাড়াও এ ঘটনায় নগরীর কালিরবাজার প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভ করে কালিরবাজারের সোনা ব্যবসায়ীরা।

প্রবীর ঘোষের ছোট ভাই বিপ্লব ঘোষ গনমাধ্যমকে জানান, “পুলিশ এখনও তেমন কোনো খবর দিতে পারেনি। ভাইয়ের সন্ধান না পাওয়ার কারণে চিন্তায় আছি। পুলিশ বলছে কাজ চলছে।”

একই সাথে বিপ্লব ঘোষের কাছে আশঙ্কার কথা জানতে চাইলে তিনি বলেন, “পাওনা দেওনা তো থাকতেই পারে। এ ঘটনার সাথে তাঁর নিখোঁজের কোনো সম্পর্ক আছে বলে মনে হয় না। তবে কি কারণে তিনি নিখোঁজ সেটি বুঝতে পারছি না।”

নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশের অফিসার-ইন-চার্জ (ওসি) কামরুল ইসলাম জানান, “পুলিশ তৎপরতা চালাচ্ছে। আমরা যথাসাধ্য চেষ্টা করছি তাঁর সন্ধান জানার জন্য।”

প্রসঙ্গত, একটি অজ্ঞাত ফোন কলের রেশ ধরে ১৮ জুন রাতের দিকে বাড়ি থেকে বের হন ভোলানাথ জুয়েলারির মালিক প্রবীর ঘোষ। এরপর থেকেই তিনি নিখোঁজ। তাঁর ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটিও খোলা পাওয়া যায়নি। কালিরবার জুয়েলারি মালিক সমিতি ও শ্রমিক সমিতি এ নিয়ে তিনদিনের মাথায় বিক্ষোভ করে তাঁর সন্ধান দাবি করেন। সন্ধান না পাওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ারও ঘোষণা দেন তাঁরা।