না‘গঞ্জ-৪ আসনে চরমোনাইয়ের প্রার্থী গ্রেফতার

 প্রেসবিজ্ঞপ্তিঃ   আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনে পীর সাহেব চরমোনাই মনোনীত ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর প্রার্থী মুহাম্মাদ শফিকুল ইসলামকে মিথ্যা মামলায় পুলিশ গ্রেফতার করেছে বলে দলের পক্ষ থেকে দাবি করেছে দলটির নারায়ণগঞ্জ মহানগর শাখা।

বৃহস্পতিবার (২১ জুন) গনমাধ্যমে প্রেরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে ওই দাবি করে এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২০ জুন রাত ১২টায় তার নিজ বাড়ি থেকে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ মহানগরের সভাপতি মুফতি মাসুম বিল্লাহ ও সেক্রেটারি মুহা. সুলতান মাহমুদ এক যুক্ত প্রতিবাদে বলেন, সামনে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থীকে দমন করার জন্য ষড়যন্ত্রমূলক এ গ্রেফতার করা হয়েছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। অবিলম্বে আমাদের প্রার্থীর মুক্তির দাবি করছি। অন্যথায় ইসলামী আন্দোলনসহ এর সকল সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের নিয়ে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। তখন উদ্ভুত পরিস্থিতির সকল দায়দায়িত্ব প্রশাসনকেই বহন করতে হবে। ইসলামী আন্দোলন শান্তিপ্রিয় আন্দোলনে বিশ্বাসী। তারা কোন বিশৃংখলা বা রাষ্ট্রবিরোধী কোন কার্যকলাপে জড়িত নয়। ইসলাম ও মানবতার জন্য ধারাবাহিকভাবে আমাদের আন্দোলন ও কর্মসূচি চলছে। এমতাবস্থায় আমাদের পিছু টেনে ধরতে একদল স্বার্থান্বেসী মহল হিংসাত্মকভাবে এহেন কর্মকা- চালিয়ে যাচ্ছে। আমরা এদের উপযুক্ত শাস্তি দাবি করছি।

ফতুল্লা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম মঞ্জুর কাদের জানান, পুরোনো একটি মামলায় তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা রয়েছে।