‘পোড়া মোবিলে কলঙ্ক’ শীর্ষক বৈঠকে সাফজবাব শ্রমিক নেতা পলাশের

আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্ক:  ধর্মঘটের সময় যারা মানুষের মুখে পোড়া মোবিল মাখিয়ে দিয়েছে তারা ফেডারেশনের কেউ নয়। তারা সন্ত্রাসী। তাদের ধরে শাস্তি দিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি আহ্বানও জানিয়েছেন বাংলাদেশ পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি ও জাতীয় শ্রমিক লীগের শ্রসিক উন্নয়ন ও কল্যান বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব কাউসার আহমেদ পলাশ ।

মঙ্গলবার (৩০ অক্টোবর) বিকাল সাড়ে ৪টায় এটিএন নিউজ টেলিভিশন চ্যানেলে সরাসরি সম্প্রচারিত   জাতীয় একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল বাংলা ট্রিবিউনের আয়োজনে পোড়া মোবিলে কলঙ্ক শীর্ষক এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

কাউসার আহমেদ পলাশ বলেন,যোগাযোগমন্ত্রীকে একটি স্মারকলিপি দেওয়া হয়। এরপর প্রত্যেক জেলা প্রশাসক বরাবর স্মারকলিপি দেওয়া হয়েছে। এরপর এই কর্মসূচি দেওয়ার আগে ছোট ছোট কর্মসূচি যেমন, মানববন্ধন, কর্মবিরতি দেওয়া হয়েছে। পরে এই ৪৮ ঘণ্টার ধর্মঘটের বিষয়ে আগেই ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন,এই ৪৮ ঘণ্টার ধর্মঘটে কে বা কারা পোড়া মোবিল দিয়েছে, সেটা আমরা জানি না। তবে একুটু নিশ্চিত করে বলতে পারি, তারা আমাদের সংগঠনের কেউ নয়। এদের খুঁজে বের করা উচিত, এরা কারা? আমাদের লোকদের কেউ এই কাজ করেনি। আমি নিজে একজনকে রাস্তায় গিয়ে ধরেছি। সে পরিচয় দিয়েছে, সে চালক। কিন্তু পরিচয়পত্র দিতে পারেনি। তখন তাকে প্রশ্ন করা হয়েছে, কে আপনি? কোন দলের?

আমরা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের পক্ষ থেকে গোয়েন্দা বাহিনী, প্রশাসনের কাছে অনুরোধ করবো, আপনারা তাদের ধরুন। শাস্তি দিন। যারা সাধারণ মানুষের মুখে কালি লাগিয়েছে। তারা সন্ত্রাসী।

মুন্নী সাহার সঞ্চালনায় এ বৈঠকিতে কাউসার আহমেদ পলাশসহ অংশ নিয়েছেন নিরাপদ সড়ক চাই-এর মহাসচিব সৈয়দ এহসানুল হক কামাল, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ হানিফ (খোকন), বাংলাদেশ যাত্রীকল্যাণ সমিতির মহাসচিব মো. মোজাম্মেল হক চৌধুরী এবং বাংলা ট্রিবিউনের বিশেষ প্রতিনিধি শফিকুল ইসলাম।

ছবি ও তথ্যঃ এটিএন নিউজ ও বাংলা ট্রিবিউন