শুধু একজন নারীর মামলার কেন? অন্য নারীদেরও করতে হবে

আজকের নারায়নগঞ্জ ডেস্ক:  বেসরকারি একটি টেলিভিশনের টকশো’তে একজন সাংবাদিক নারী সাংবাদিককে (মাসুদা ভাট্টি) কটূক্তি করায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের সমালোচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। একইসঙ্গে তিনি বলেছেন: যদি তার বিরুদ্ধে বিচার চেয়ে আরও মামলা করা হয় তাহলে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলনের এক পর্যায়ে একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল কর্মরত নারী সাংবাদিক প্রশ্ন রাখেন: ঐক্যফ্রন্টের একজন নেতা প্রকাশ্যে একজন নারী সাংবাদিককে অকথ্য ভাষায় কটূক্তি করেছেন। আমরা দেখেছি সকালে তার বিরুদ্ধে ওয়ারেন্ট জারি হয়েছে, বিকেলের মধ্যে তিনি কোর্ট থেকে আগাম জামিন নিয়ে বের হয়ে এসেছেন!

‘মাঝখানের পুরোটা সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নীরব ছিল। এমনকি আপনার দলের এবং আপনার সরকারের মন্ত্রিসভার নারী সদস্যরাও নীরব ছিলেন। আপনি বিষয়টাকে কিভাবে দেখছেন?’

জবাবে  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, নারী সাংবাদিকদকে জঘন্য ভাষায় বক্তব্যে মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে মামলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী কিছু করার আগেই তিনি আদালতে গিয়েছিলেন। আর তাঁর বিরুদ্ধে শুধু একজন নারীর মামলার কেন? অন্য নারীদেরও করতে হবে। তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করুন, আমরা যা করার করবো।

সোমবার বিকেলে গণভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে এক সংবাদকর্মীর প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রীর সৌদি আরব সফর নিয়ে এই সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করা হয়।